Sunday, March 22nd, 2020




করোনায় প্রাণ হারালেন রিয়ালের সাবেক সভাপতি

করোনাভাইরাসের সংক্রমণে প্রাণ হারালেন ইউরোপের শীর্ষ ফুটবল ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদের সাবেক সভাপতি লরেঞ্জো সাঞ্জ (৭৬)।

স্থানীয় সময় ২১ মার্চ স্পেনের একটি হাসপাতালে তিনি মারা যান বলে নিশ্চিত করেছেন তার ছেলে ফার্নান্দো সাঞ্জ।

স্প্যানিশ গণমাধ্যমকে ফার্নান্দো বলেন, কয়েকদিন আগে বাবার শরীরে কভিড-১৯ শনাক্ত হয়। তিনি অসুস্থ বোধ করলে গত বুধবার একটি হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রাখা হয় তাকে । কিন্তু নভেল করোনার সঙ্গে যুদ্ধে পরাজিত হলেন তিনি।

করোনায় বাবার বিয়োগে আবেগ তাড়িত হয়ে টুইট করেছেন ফার্নান্দো।

তিনি লেখেন, ‘আমার বাবা মারা গেছেন। তার এভাবে চলে যাওয়ার কথা ছিল না। আমার দেখা অন্যতম দয়ালু, সাহসী ও কঠোর পরিশ্রম করা মানুষটি চলে গেলেন। পরিবার এবং রিয়াল মাদ্রিদ ছিল তার ভালোবাসা।’

এদিকে সাবেক সভাপতির মৃত্যুতে বিবৃতি দিয়েছে রিয়েল মাদ্রিদ ক্লাব।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘রিয়াল মাদ্রিদ এবং বোর্ড পরিচালকরা অত্যন্ত দুঃখ ও শোকের সঙ্গে জানাচ্ছে, লরেঞ্জো সাঞ্জ মারা গেছেন। তিনি ১৯৯৫ থেকে ২০০০ পর্যন্ত রিয়াল মাদ্রিদের সভাপতি ছিলেন। আমরা শোকাহত এমন এক সভাপতির জন্য, যিনি জীবনের একটা বড় অংশ নিংড়ে দিয়েছিলেন রিয়ালের জন্য। এই অবস্থায় রিয়াল যত দ্রুত সম্ভব তাকে প্রাপ্য মর্যাদা দেয়ার চেষ্টা করবে।’

সাঞ্জের মৃত্যুতে আবেগঘন টুইট করেছেন রিয়ালের সাবেক অধিনায়ক ইকার ক্যাসিয়াস।

তিনি লিখেছেন, ‘শান্তিতে ঘুমাও সভাপতি। এই কঠিন সময়ে সাঞ্জের পরিবার ও বন্ধুদের সমবেদনা জানাই। করোনাভাইরাসে সাঞ্জের মতো যারা চলে গেছেন, তাদেরও গভীর শ্রদ্ধা জানাই।’

প্রসঙ্গত, ১৯৮৫ থেকে ১৯৯৫ সাল পর্যন্ত টানা ১০ বছর ক্লাবের পরিচালক ছিলেন লরেঞ্জো সাঞ্জ। ১৯৯৫ সালে তিনি রিয়ালের সভাপতি হন। সাঞ্জের অধীনে অন্যতম সেরা ক্লাবের মর্যাদা পুনরুদ্ধার করে রিয়াল। ৩২ বছরের খরা কাটিয়ে ১৯৯৮ ও ২০০০ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছিল তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

Advertisement