Saturday, November 21st, 2020




মওলানা ভাসানীর কথা শুনলে দেশ ব্রুনাই হতো: ডাঃ জাফরুল্লাহ

মজলুম জননেতা মওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর কথা শুনলে দেশ আজকে এই পর্যায়ে না থেকে আরো উন্নত হতো বলে মন্তব্য করেছেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের চেয়ারম্যান এবং গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডাঃ জাফরুল্লাহ চৌধুরী। শনিবার (২১ নভেম্বর) সকাল ১১ টায় মওলানা ভাসানীর ৪৪ তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে মুন্সীগঞ্জ জেলা ভাসানী অনুসারী পরিষদের উদ্যোগে মুন্সিগঞ্জ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন,আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চতুরতাতে অপরিসীম।।উনি ভালো কাজ করছেন, করতে চান কিন্তু কেনো যেনো উনাকে আটকে দেয়া হয়। যেমন পরশু দিন উনি এন্টিবায়োটিকের বিপদের কথা বলেছেন। এটা অত্যন্ত সঠিক কথা। কিন্তু উনি কি কাজ করেছেন? তাহলে কি করতে হবে ডাক্তাররা যে প্রেসক্রিপশন দেন সেইগুলোর অডিট করতে হবে। আজব আজব ওষুধ দিচ্ছে কিনা সেটা দেখতে হবে। পরিবর্তন হলে এই দেশ ব্রুনাই হতো, সুইজারল্যান্ড না হলেও ব্রুনাই হতো। আপনারা যদি মাওলানা ভাসানীর কথা শুনতেন তাহলে এই দেশ ব্রুনাই হতো। সরকারের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা জিকে শামীম কে ধরলেন। তাকে ভিআইপি মর্যাদা দিয়ে পিজি হাসপাতালে রাখলেন।

গনসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি বলেন, ভাসানী নিজ প্রচেষ্টায় আধুনিক গণতান্ত্রিক ব্যবস্থার একটা কাঠামো তৈরি করে গেছেন। তার সংগ্রামের মাধ্যমে গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানের দূর্বলতা, শক্তিশালী দিক দেখিয়ে গেছেন। গণতান্ত্রিক ব্যবস্থার মধুর উপাদান তিনি যুক্ত করেছেন। মুন্সিগঞ্জের সাবেক মেয়রনএড. মুজিবুর রহমানের সভাপতিত্বত্বে ভাসানী অনুসারী পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক মহাসচিব নঈম জাহাঙ্গীর, জাতীয় পার্টি প্রেসিডিয়াম সদস্য আহসান হাবীব লিংকন,সাবেক ন্যাপ নেতা অধ্যাপক আবুল বাসার, ভাসানী অনুসারী পরিষদের কেন্দ্রীয় নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা ফরিদ উদ্দিন, ইউনুছ মৃধা প্রমূখ। সভা পরিচালনা করেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের কেন্দ্রীয় নেতা রফিকুল ইসলাম রিপন প্রমুখ এতে উপস্থিত ছিলেন বার্তা প্রেরক- জাহাঙ্গীর আলম মিন্টু প্রেস উপদেষ্টা গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ