Tuesday, July 23rd, 2019




ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে সিভিল সার্জন মারা গেলে আমাদের কি হবে?

সৈয়দ মোঃ রাসেল, হবিগঞ্জ : ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণকারী হবিগঞ্জের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ শাহাদৎ হোসেন হাজরা’র (৫৩) দাফন সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল সোমবার বাদ আছর তার গ্রামের বাড়ি পিরোজপুর জেলার সদর উপজেলার লখাকাট গ্রামে জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন সম্পন্ন হয়। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও ১ ছেলে এবং ১ মেয়ে রেখে গেছেন।

এ বিষয়ে হবিগঞ্জ সিভিল সার্জন কার্যালয়ের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোঃ শাহ আলম জানান, ‘ মরহুম শাহাদাৎ হোসেনের স্ত্রী-কন্যাও ডেঙ্গুেতে আক্রান্ত। তিনি আরো জানান, মাত্র ১৩ দি আগে উনি হবিগঞ্জের সিভিলসার্জন হিসেবে যোগাযোগ করেন। ওনার অকাল মৃত্যুতে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগে শোকের ছায়া নেমে এসেছে’।

এদিকে, ডেঙ্গুজ্বরে সিভিল সার্জনের মৃত্যুর খবরটি প্রকাশ হবার পর জেলা সর্বত্র ডেঙ্গু আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। সাধারণ মানুষ বলা-বলি করছেন ‘এডিস’ মশার কবল থেকে সিভিল সার্জনই যদি রক্ষা না পেলেন তাহলে আমাদের কি হবে ? বিশেষ করে হবিগঞ্জ পৌর এলাকায় সাম্প্রতিক সময়ে মশার উপদ্রব চরম আকার ধারন করায় আতঙ্কের বিষয়টি আরও প্রবল হয়েছে। পাশা-পাশি মশা নিধনে হবিগঞ্জ পৌরসভার ভুমিকা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে জনমনে।
উল্লেখ্য বেশ কিছুদিন ধরে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত ছিলেন হবিগঞ্জের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ শাহাদৎ হোসেন হাজরা। গত রোববার সকালে নিজ কার্যালয়ে তিনি দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সমন্বয় সভায়ও অংশ নেন। এ সময় অসুস্থতাবোধ করলে তিনি সেখান থেকে চলে যান। এরপর তাকে হবিগঞ্জ আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বিকেল ৪ টার দিকে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে ঢাকায় প্রেরণ করেন। রাত সাড়ে ১১ টার দিকে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পৌঁছলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এর আগে ৯ জুলাই পদোন্নতি পেয়ে হবিগঞ্জের সিভিল সার্জন হিসেবে যোগদান করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ